আজ দোল পূর্ণিমা,অন‍্যকে রাঙিয়ে দেওয়ার খেলা।

আজ ২৮ শে র্মাচ দোল উৎসব।আজ বাঙালী তথা গোটা দেশ রঙের সাজে সেজে উঠেছে।বসন্তের গানে মুখরিত চারিদিক।নানা রঙে পুলকিত আমাদের মন।তবে করোনার প্রকোপ থেকে এখন ও আমরা বেরোতে পারিনি।তাই প্রতি বছরের মতো আমরা সেভাবে দোল খেলতে পারবো না।বাঙালী বারো মাসে তেরো পর্বন করে সেখানে দোল তো সবার প্রানের উৎসব ,করোনার সমস্ত নিয়ম মেনেই চলবে দোল উৎসব।রবীন্দ্রভারতীতে যেভাবে দোল উৎসব পালন করা হত তা এবারে হচ্ছে না কারন করোনা আবার ও বেড়েই চলেছে।কিন্তু আমরা আমাদের কাছের মানুষ দের সাথে দোল তো খেলতেই পারি।

রাধা কৃষ্ রঙ দিয়ে একে অপরকে রাঙিয়ে ছিলেন।সেই থেকেই চলে আসছে এই উৎসব।সমস্ত মানুষের মধ‍্যে একে অপরে রঙ দিয়ে রাঙিয়ে দেওয়াই তো এই উৎসবের মূল কারন।মনের সমস্ত আনন্দের আলোকে রঙের ছোঁয়াই আলোকিত করাই তো দোল।রঙ দিয়ে মানুষের মধ‍্যে থাকা সাতরঙা রঙ কে ছড়িয়ে দিতে চেয়েছিলেন রাধা কৃষ্ন।মনের মধ‍্যে থাকা অন্ধকার ওখারাপ ভাবনা গুলি ধ্বংস করার জন‍্য চাচোড় পুরানো হয় কোথাও কোথাও ন‍্যাড়া পরা ওবলা হয়,এটা করা হয় দোলের আগের দিন।এবারের দোল সেভাবে পালন না করা গেলোও আগামী বছর গুলিতে খুব আনন্দে্র সহিত পালিত হবে তা আশা করা যায়।দোল সবার খুব ভালো কাটুক এই কামনাই করি।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *